পটুয়াখালী বাউফলের তেঁতুলিয়ায় চলছে ইলিশ নিধনের মহোৎসব

 

সাঈদ ইব্রাহিম,পটুয়াখালীঃপটুয়াখালী বাউফলের তেঁতুলিয়া নদীকে ঝাটকা ইলিশ রক্ষা করার জন্য অভয়াশ্রম হিসেবে চিনহিত করেছে সরকার। কিন্তু নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষা করে শত শত জেলে নদীতে ইলিশ আহরণের উৎসবে মেতেছে।
জানাগেছে, ১লা মার্চ থেকে ৩০ এপ্রিল পর্যন্ত তেঁতুলিয়া নদীর এ অভয়াশ্রমে ইলিশ সহ সকল ধরনের মাছ আহরণ নিষিদ্ধ থাকবে। চর ভেদুরিয়া থেকে চর রুস্তুম পর্যন্ত ১০০ কিলোমিটার তেঁতুলিয়া নদীর মোহনা বগি, নিমদি, মমিনপুর, কালাইয়া, চন্দ্রদ্বিপ ও ধুলিয়া এলাকার প্রায় ৪০ কিলোমিটারের সকল স্থানই অরক্ষিত। শত শত জেলে নৌকা ভাষছে তেতুলিয়ার বুকে। ইলিশ জাল ফেলে নিধন করা হচ্ছে হাজারো মেট্রিক টন ঝাটকা ইলিশ। নদী তীরবর্তী এলাকার জেলেরা নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে এ মহা উৎসবে মেতেছে। জেলেরা জানান, সরকারের দেয়া ত্রান চাহিদার তুলনায় অপ্রতুল। এখনই ইলিশ ধরার মূল মৌসুম। এ সময়ই মহাজন ও দেনাদারদের পাওনা পরিশোধ করি। মহাজনের দেনা ও সন্তানদের মুখে একমুঠো ভাত জুটানোর চিন্তা করে জেল জরিমানা মাথায় রেখে ঝুঁকিয়ে নিয়েই নদীতে নামতে হচ্ছে। বাউফল দশমিনা উপজেলা মৎস্য কর্মকতা (ভারপ্রাপ্ত) মাহবুবুর রহমান জানান, মাত্র ১০ জন জনবল ও দুটি ট্রলার দিয়ে জেলেদের আটকানো সম্ভব হচ্ছেনা। আমরা সর্বোচ্চ দিয়ে ইলিশ আহরণ বন্ধ রাখার চেষ্টা করছি। উপজেলা নির্বাহী অফিসার জাকির হোসেন জানান, ইলিশের বাচ্চা রক্ষা করার জন্য জেলে পল্লীতে সচেতনতামূলক সভা মাইকিং ও লিফলেট বিতরণ করা হয়েছে। যদি তারা না শুনে তবে ভ্রাম্যমান আদালত বসিয়ে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here