অপতৎপরতা এড়াতে কড়া নজরদারি : র‌্যাব ডিজি

নিজস্ব প্রতিনিধিঃ:অমর একুশে ফেব্রুয়ারি ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালনে শহীদ মিনার এলাকায় সার্বিক নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে পুলিশের এলিট ফোর্স র‌্যাবের কড়া নজরদারি থাকবে বলে জানিয়েছেন র‌্যাবের মহাপরিচালক (ডিজি) চৌধুরী আবদুল্লাহ আল-মামুন।

শনিবার দুপুর ১২টায় কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার এলাকার নিরাপত্তা ব্যবস্থা পর্যবেক্ষণ শেষে র‌্যাবের মহাপরিচালক এ কথা বলেন।

চৌধুরী আবদুল্লাহ আল-মামুন বলেন, মহান শহীদ দিবস উপলক্ষে যেকোনো বিশৃঙ্খলা ও অপতৎপরতা এড়াতে ছদ্মবেশে ও সাদা পোশাকে র‌্যাব সদস্যরা কঠোর নজরদারি চালাবে। মধ্যরাত থেকে সারা দেশে শহীদ মিনারে পুষ্পস্তবক অর্পণ করা হবে।

র‌্যাবের ডিজি বলেন, করোনা পরিস্থিতির কারণে এবার সরকার নির্ধারিত স্বাস্থ্যবিধি মেনে মহান শহীদ দিবস পালিত হবে। শহীদ মিনার এলাকায় আগতদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে এবং বিশৃঙ্খলা ও যেকোনো সন্ত্রাসী কার্যক্রম এড়াতে র‌্যাবের পক্ষ থেকে কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার এলাকাকে পাঁচটি সেক্টরে ভাগ করে পুলিশের সঙ্গে সমন্বয় করা হবে। এ ছাড়া র‌্যাবের তিন স্তরের নিরাপত্তা ব্যবস্থা থাকবে।

সারা দেশে বিশেষ করে বিভাগীয় ও জেলা শহরগুলোতে যেকোনো ধরনের বিশৃঙ্খলা এড়াতে র‌্যাব সদস্যদের ছদ্মবেশে ও সাদা পোশাকে গোয়েন্দা নজরদারি অব্যাহত থাকবে। র‌্যাবের বোম্ব ডিসপোজাল ইউনিট ও ডগ স্কোয়াড শহীদ মিনার এলাকা সুইপিং করবে ও পরে স্ট্যান্ডবাই থাকবে।

শহীদ দিবস উপলক্ষে ১৮ ফেব্রুয়ারি থেকেই র‌্যাবের নজরদারি অব্যাহত রয়েছে উল্লেখ করে চৌধুরী আবদুল্লাহ আল-মামুন বলেন, শহীদ মিনারের আশপাশে হোটেল-রেস্তোরাঁ, বস্তিসহ সন্দেহজনক সব স্থানে তল্লাশির মাধ্যমে নিরাপত্তা নিশ্চিত করা হয়েছে। শহীদ মিনার কেন্দ্রিক গুরুত্বপূর্ণ স্থানে চেকপোস্ট স্থাপন করে সন্দেহভাজনদের তল্লাশি করা হবে। নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে শহীদ মিনারে আগত নারীদের প্রয়োজনে র‌্যাবের নারী সদস্যদের মাধ্যমে তল্লাশি করা হবে।

শহীদ মিনারের আশপাশের এলাকায় র‌্যাবের বোম্ব ডিসপোজাল ইউনিট, স্ট্রাইকিং ফোর্স স্ট্যান্ডবাই থাকবে জানিয়ে ডিজি বলেন, র‌্যাবের কন্ট্রোল রুম থেকে সিসিটিভি ক্যামেরার মাধ্যমে সার্বক্ষণিক মনিটরিং করা হবে। যেকোনো স্থানে মুভমেন্টের জন্য র‌্যাবের হেলিকপ্টার প্রস্তুত থাকবে। এ ছাড়া দেশজুড়ে শহীদ মিনারকেন্দ্রিক নিরাপত্তায় যথেষ্ট সংখ্যক র‌্যাব সদস্য মোতায়েন থাকবে।

এক প্রশ্নের জবাবে চৌধুরী আবদুল্লাহ আল-মামুন বলেন, শহীদ দিবস ঘিরে এখন পর্যন্ত কোনো হুমকির তথ্য পাইনি। তবে আমরা কোনো কিছুকেই হালকাভাবে নেই না, যেকোনো সময় যেকোনো পরিস্থিতি মোকাবিলায় প্রস্তুত রয়েছি। আমাদের প্রস্তুতি রয়েছে, তবে কোনো ধরনের নাশকতার তথ্য নেই।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here