সমাজে অপরাধ দানা বাঁধার আগেই তা নির্মুল করতে হবে-বিএমপি কমিশনার

নিজস্ব প্রতিনিধিঃবরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশ কমিশনার জনাব মোঃ শাহাবুদ্দিন খান বলেছেন,সমাজে অপরাধ দানা বাঁধার আগেই তা নির্মুল করতে হবে। অপরাধের ক্ষেত্র যাতে তৈরী হতে না পারে সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে।ওপেন হাউজ ডে,বিট পুলিশিং ও কমিউনিটি পুলিশিংয়ের মাধ্যমে পুলিশের সাথে সাধারন জনগনের সম্পৃক্ততা আরো বাড়িয়ে প্রত্যন্ত অঞ্চলের মানুষের কাছে নির্ভেজাল পুলিশি সেবা পৌঁছে দিতে হবে।জমি নিয়ে দিন দিন সমস্যা বৃদ্ধি পাচ্ছে।এ সমস্যা দুর করতে একটি ওয়ার্কিং প্লান তৈরী করে সামনে আগাতে হবে।অন্যের জমি দখল করে জোর পূর্বক কাউকে তার জমি থেকে বিতারিত করার সংস্কৃতি দুর করতে হবে।সামাজিক সমস্যা সমাধানের একটি অন্যতম পথ হতে পারে বিট পুলিশিং।সুতরাং বিট পুলিশিং কার্যক্রমকে আরো জোরদার করতে হবে।
বুধবার(১০ ফেব্রুয়ারী) বেলা ১১ টায় বরিশাল এয়ারপোর্ট থানায় অনুষ্ঠিত ওপেন হাউজ ডে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ সব কথা বলেছেন।
এ সময় তিনি আরও বলেন,কিভাবে সমাজের সমস্যাগুলো সমাধান করা যায় এ বিষয়ে পুলিশকে আরো তৎপর হতে হবে।একটি সুনির্দিষ্ট পরিকল্পনার আলোকে সাধারন জনগনের সমস্যা সমাধানের জোর প্রচেষ্টা চালাতে হবে।
পুলিশ কমিশনার জনাব মোঃ শাহাবুদ্দিন খান উপস্থিত ভুক্তভোগীদের উদ্দেশ্যে বলেন,আইন কেউ নিজের হাতে তুলে নিবেননা।কোন প্রকার দাবী নিয়ে জোর জবরদস্তি করে আইন শৃংখলা বিঘ্নিত কোন কাজ করে কেউ রেহাই পাবেননা।বরং সমস্যা সমাধানের আইন সংগত পথে আগালে আপনার সমস্যা শান্তিপূর্ন ভাবে সমাধান হবে।
বিশেষ অতিথির বক্তব্যে উপ-পুলিশ কমিশনার উত্তর জনাব মোঃ খাইরুল আলম বলেছেন,ওপেন হাউজ ডের কারনে পুলিশের জনগনের সাথে সম্পৃক্ততা বৃদ্ধি পাওয়ায় এলাকার অনেক সমস্যা স্থানীয় ভাবে সমাধান হয়ে যাচ্ছে।বিট পুলিশিং,কমিউনিটি পুলিশিং ও ওপেন হাউজ ডে এর মাধ্যমে আমরা সমাজ থেকে সকল প্রকার অপরাধ দুর করতে চাই।এ জন্য জনসাধারনকে পুলিশের কাছে এলাকার চলমান ঘটনা সম্পর্কে তথ্য দিয়ে সহযোগিতা করতে হবে।মাদকের বিরুদ্ধে আমাদের অবস্থান জিরো টলারেন্স।মাদকের বিরুদ্ধে সবাইকে আরো সোচ্চার হতে হবে।সব সময় সকল তথ্য পুলিশের কাছে থাকেনা।তাই অপরাধ মুক্ত সমাজ গড়তে পুলিশকে সহযোগিতা করুন।
অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার উত্তর রুনা লায়লা বলেছেন,এলাকার আইন শৃংখলা পরিস্থিতি ঠিক রাখতে হলে সবাইকে এগিয়ে আসতে হবে।পুলিশকে তথ্যদিয়ে সহযোগিতা করতে হবে।সবার সহযোগিতার মাধ্যমে নিজেরা সচেতন হতে পারলে আমরা নিজেরা শান্তিতে থাকতে পারবো এবং একটি নিরাপদ সমাজ উপহার দিতে পারবো।
এয়ারপোর্ট থানার সহকারী পুলিশ কমিশনার নাসরিন জাহান বলেছেন,ওপেন হাউজ ডে এমন একটি অনুষ্ঠান যেখানে ভুক্তভোগীদের কথা শুনে তাৎক্ষনিক সমস্যার সমাধান দেয়া হয়।এখানে ভুক্তভোগীদের কথা গুরুত্বের সাথে শুনে সমস্যার সমাধানে ব্যবস্থা নেয়া হয়।আপনাদের এলাকার গুরুত্বপূর্ণ স্থানে সিসি ক্যামেরার ব্যাবস্থা করার চেষ্টা করবেন।কারন বর্তমানে সিসি ক্যামেরার মাধ্যমে অপরাধী সনাক্ত করা সহ অনেক গুরুত্বপূর্ন তথ্য উদঘাটন করা যায়।
এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন,এয়ারপোর্ট থানার অফিসার ইনচার্জ এস এম জাহিদ বিন আলম,ট্রাফিক পুলিশের টি আই বিদ্যুৎ চন্দ্র পুলিশ পরিদর্শক অপারেশন বিপ্লব মিস্ত্রী সহ অন্যান্য কর্মকর্তাবৃন্দ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here