বিবাহ বিচ্ছেদের শারীরিক ও মানসিক প্রভাব

নিউজ ডেস্কঃপর্যবেক্ষণে দেখা গেছে বিবাহ বিচ্ছেদের কারণে দেহে ও মনে নেতিবাচক প্রভাব পড়ে। মহামারীকালের এক ভিন্ন আঙ্গিকের কুপ্রভাব হল বিবাহ বিচ্ছেদ, তালাকের সংখ্যার ঊর্ধ্বগতি। এক গবেষণা বলছে, বিবাহ বিচ্ছেদের প্রভাব যে মানসিক অবস্থার ওপরেই পড়ে তা নয়, শারীরিক ক্ষতিও হয়।

‘ফ্রন্টিয়ার্স ইন সাইকোলজি’ শীর্ষক সাময়িকীতে প্রকাশিত এই পর্যবেক্ষণমূলক গবেষণায় ডেনমার্কের ১,৯০০ জন তালাকপ্রাপ্ত মানুষের মাঝে জরিপ চালানো হয়।

নিজেদের বিবাহ বিচ্ছেদের ঘটনা, কারণ এবং তাদের স্বাস্থ্যের ওপর এর প্রভাব নিয়ে নানান প্রশ্নের জবাব দেন অংশগ্রহণকারীরা।

সার্বিক বিবেচনায় দেখা যায়, তালাক বা বিচ্ছেদের ঠিক পরপরই এই মানুষগুলোর জীবনযাত্রার মান অনেকটা নিচে নেমে যায়।

এই জরিপের প্রধান, ইউনিভার্সিটি অফ কোপেনহেইগেন’য়ের অধ্যাপক ডা. সোরেন স্যান্ডার এক বিজ্ঞপ্তিতে বলেন, “সমসাময়িক অবস্থানের অন্যান্য মানুষের তুলনায় তালাকপ্রাপ্তদের শারীরিক ও মানসিক স্বাস্থ্যের উল্লেখযোগ্য মাত্রায় অবনতি ঘটে। আর তা ঘটনার ঠিক পরপরই আকস্মিকভাবে ঘটে যায়।”

অংশগ্রহণকারীদের যে প্রশ্নগুলো করা হয় তা দিয়ে তাদের শারীরিক, মানসিক স্বাস্থ্যের অবস্থা, সামাজিক জীবন বজায় রাখার চেষ্টা এবং সার্বিক কর্মশক্তির মাত্রা বিবেচনা করা হয়।

বিবাহ বিচ্ছেদের মতো মানসিক ঝড় পূর্বের আরও বড় ধরনের স্বাস্থ্যগত সমস্যা তৈরি পেছনে দায়ি, এমনটা ইঙ্গিত পেয়েছেন বিশেষজ্ঞরা। রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা দূর্বল হওয়া, হৃদযন্ত্রের কার্যক্ষমতা কমে যাওয়া, ঘুমের প্রচণ্ড অবনতি, প্রচন্ত মানসিক অস্বস্তি ও হতাশা এদের মধ্যে অন্যতম।

বিচ্ছেদের ধরনের ওপরেও তার পরিণামকে অনেকাংশে প্রভাবিত করে।

পারস্পরিক বোঝাপড়ার মাধ্যমে হওয়া বিচ্ছেদের পরে শারীরিক ও মানসিক ক্ষতি খুব বেশি হয় না। তবে কলহ, ভুল বোঝাবুঝির পরিণাম হিসেবে হওয়া বিচ্ছেদের ধ্বংসাত্বক প্রভাব মারাত্বক।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here