‘ওয়াসার কার্যক্রমে সন্তুষ্ট প্রধানমন্ত্রী’

নিজস্ব প্রতিনিধিঃযারা স্বজনপ্রীতি করে ও দুর্নীতিপরায়ণ, তারাই তাকে দায়িত্ব থেকে সরাতে চান বলে অভিযোগ করেছেন ওয়াসার ব্যবস্থাপনা পরিচালক তাকসিম এ খান।

শুক্রবার (১৬ অক্টোবর) সকালে, গত ১০ বছরে ওয়াসার অর্জন এবং আগামী ৩ বছরের ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা নিয়ে রাজধানীর কারওয়ান বাজারে ওয়াসা ভবনে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এ কথা বলেন তিনি। এসময় তাকসিম এ খান বলেন, আমাদের যে ব্যবস্থাপনার আমূল পরিবর্তন আমরা করতে পরেছি ঢাকা শহরে সেটিকে টেকসই করার জন্য আপ্রাণ চেষ্টা করবো। পুরো ঢাকাকে শতভাগ সুয়্যারেজ ব্যবস্থার মধ্যে আনতে চেষ্টা করবো। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশকে একটা মধ্যম আয়ের দেশে নিয়ে যেতে চেষ্টা করছেন। আমরাও উনার ভিশনকে লক্ষ্য রেখে সক্ষমতা অর্জন করেছি। ওয়াসার চলমান কার্যক্রমে প্রধানমন্ত্রী ও স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয় সন্তুষ্ট।

তাকসিম এ খান আরো জানান, পরিবেশবান্ধব, টেকসই ও গণমুখী পানি ব্যবস্থাপনা গড়ে তুলতে অচিরেই শতভাগ বৈধ পানি সংযোগের আওতায় আনবে ওয়াসা। আর, ঢাকার সব খাল এবং সম্পুর্ন ড্রেনেজ ব্যবস্থাপনা এককভাবে সিটি করপোরেশনের হাতে থাকলে জলাবদ্ধতা সমস্যার সমাধান সহজ হবে। এসময় ওয়াসার বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

তাকসিম এ খানের নিয়োগ প্রক্রিয়া চ্যালেঞ্জ করা রিটের ওপর হাইকোর্টে শুনানি শেষে এ বিষয়ে আদেশের জন্য আগামী ১৮ অক্টোবর দিন নির্ধারণ করেন আদালত। গত ১৯ সেপ্টেম্বর ঢাকা ওয়াসার ব্যবস্থাপনা পরিচালক হিসেবে তাকসিম এ খানের মেয়াদ আরো তিন বছর বাড়ানোর প্রস্তাব মন্ত্রণালয়ে পাঠানোর সুপারিশ করা হয়। স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয় অনুমোদন দিলে ষষ্ঠবারের মতো এই পদে বসতে যাচ্ছেন তিনি। ২০০৯ সালে ঢাকা ওয়াসার ব্যবস্থাপনা পরিচালক পদে প্রথম নিয়োগ পান তাকসিম এ খান। এরপর চার দফায় তার মেয়াদ বাড়ানো হয়। ১৪ অক্টোবর তার পঞ্চমবারের মেয়াদ শেষ হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here