বাবা-মায়ের লাশের পাশে কাঁদছিলো মারিয়া

সাতক্ষীরা প্রতিনিধি:একটি রুমের মধ্যে মা, এক ভাই ও এক বোনের গলাকাটা মরদেহ ছড়িয়ে রয়েছে। মায়ের পাশেই পড়ে কাঁদছিল ছয় মাস বয়সী শিশু মারিয়া সুলতানা। পাশের রুমে বাবার পা বাঁধা মরদেহ পড়ে রয়েছে খাটের উপরে। এভাবে নৃশংসভাবে গলাকেঁটে হত্যা করা হয়েছে একই পরিবারের চারজনকে।

সাতক্ষীরার কলারোয়া উপজেলার হেলাতলা ইউনিয়নের খলিশা গ্রামে একই পরিবারের ৪ জনকে গলা কেটে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। তবে সৌভাগ্যক্রমে বেঁচে গেছে শিশু মারিয়া। মা-বাবাকে খুঁজছে ছোট্ট মারিয়া। পুরো একটি পরিবার নিঃশেষ হয়ে যাওয়ায় বাকরুদ্ধ প্রতিবেশীরা।

তবে পুলিশ এখনও ঘটনার ক্লু উদঘাটন করতে পারেনি। আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর বিভিন্ন টিম মাঠে কাজ করছে বলে জানিয়েছেন সাতক্ষীরার পুলিশ সুপার মো. মোস্তাফিজুর রহমান। এদিকে, নৃশংস হত্যাকাণ্ডের শিকার পরিবারের জীবিত একমাত্র ছয় মাসের মেয়েশিশুর দায়িত্ব নিয়েছেন জেলা প্রশাসক।

বৃহস্পতিবার (১৫ অক্টোবর) দুপুরে এক ফেসবুক বার্তায় এই তথ‌্য জেলা প্রশাসক এস এম মোস্তফা কামাল নিজে নিশ্চিত করেছেন।

জেলা প্রশাসক জানান, তিনি আপাতত মেয়েশিশুকে দেখাশোনার জন্য স্থানীয় মহিলা ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) সদস্যকে দায়িত্ব দেন এবং সাময়িকভাবে দেখভাল করতে অনুরোধ করেন। পরবর্তীতে অভিভাবকরা দাবি করলে আইনানুগভাবে বিষয়টি সমাধান করা হবে বলেও জানান জেলা প্রশাসক।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here