সুপ্রিম কোর্টের সকল আইটি অফিসারকে আপিল বিভাগের শোকজ

নিজস্ব প্রতিনিধিঃ সুপ্রিমকোর্টের সকল আইটি অফিসারকে কারণ দর্শানোর নোটিশ জারি করার নির্দেশ দিয়েছেন সুপ্রিমকোর্টের আপিল বিভাগ।

সোমবার (১২ অক্টোবর) সকালে প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেনের নেতৃত্বাধীন সাত সদস্যের আপিল বিভাগের ভার্চুয়াল পূর্ণাঙ্গ বেঞ্চে এ আদেশ দেন।

দেশের বিচার বিভাগ নিয়ে ফেসবুকে আপত্তিকর মন্তব্য করে স্ট্যাটাস দেওয়ায় ঘটনায় সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী ইউনুছ আলী আকন্দের বিষয়ে রায়ের নির্ধারিত দিনে আপিল বিভাগ এ আদেশ দেন।

প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন সুপ্রিমকোর্টের স্পেশাল অফিসার ও মুখপাত্রকে বলেন, আপনি রেজিস্ট্রার জেনারেলকে বলবেন সুপ্রিম কোর্টের সকল আইটি অফিসারকে আজকের মধ্যে শোকজ নোটিশ দিতে।

এদিন সকাল ১০টার দিকে এজলাসে বসেন সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগ। বসার পর শুনানির জন্যে ‘আদালত অবমাননাকারী’ আইনজীবী উপস্থিত কিনা সেটা জানতে চান। অথচ আইনজীবী আপিল বিভাগের ডায়েসের ওপরে রাখা ল্যাপটপের সামনে দাঁড়িয়ে ছিলেন।

এ সময় আপিল বিভাগ উপস্থিত কর্মকর্তাদের কাছে জানতে চান, ‘আদালত অবমাননাকারী’ আইনজীবী কি উপস্থিত আছেন। জবাবে কর্মকর্তারা আদালতকে জানান, জি উনি উপস্থিত আছেন। এ সময় আইনজীবী ইউনুছ আলী আকন্দ বলতে থাকেন জি স্যার আমি উপস্থিত আছি।

আদালত বলেন, আপনাকে তো দেখা যাচ্ছে না। আপনি কথা বলছেন না কেন? এক পর্যায়ে আপিল বিভাগ বলেন রায় ঘোষণা পিছিয়ে বেলা সাড়ে ১১টায় দিবো নাকি?

এ পর্যায়ে আপিল বিভাগ বলেন, আইনজীবী ইউনুছ আলীর কথা শুনতে পারছি না আমরা। উনার সামনে কি ল্যাপটপ নেই। ল্যাপটপে সমস্যা হলে মোবাইলে লাইন দেন। কর্মকর্তারা বলেন, উনার সামনে ল্যাপটপে সমস্যা দেখা দিচ্ছে।

আপিল বিভাগ বলেন, কম্পিউটার ও ল্যাপটপের মনিটরে আওয়াজ পাওয়া যায় না। আইনজীবীকে কথা বলতে বলুন। জবাবে ইউনুছ আলী বলেন, আমি ফ্রেশ আবেদন জমা দিয়েছি।

আদালত বলেন, এসব টেকনিক্যাল বিষয় আগে থেকেই ঠিক করে রাখলেই তো হয়। প্রধান বিচারপতি বলেন, আইটি অফিসার কোথায় আছেন, কোর্টে আসছে কি-না? জবাবে সুপ্রিম কোর্টের মুখপাত্র সাইফুর রহমান বলেন, তারা অফিসেই আছেন স্যার। এ সময় প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন বলেন, তারা অফিসেই বসে থাকুক।

এ সময় আপিল বিভাগ আরও বলেন, স্পেশাল অফিসার সাইফুর রহমান সবাইকে শোকজ করার জন্যে রেজিস্ট্রার জেনারেলকে বলবেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here