বরিশাল-ঝালকাঠি মহাসড়কে অবৈধ চেকপোস্ট, সাংবাদিককে হুমকি

এস.এম. রেজাউল করিম; ঝালকাঠি :বরিশাল-ঝালকাঠি মহাসড়কের নলছিটি উপজেলার ষাইটপাকিয়া বাজার এলাকায় চেকপোস্টের নামে বাস মালিক সমিতির লোকজন যাত্রীদের হয়রানি করছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। অবৈধভাবে চেকপোস্ট বসিয়ে মহাসড়কে চলাচল করা থ্রি-হুইলার (মাহিন্দ্র) থামিয়ে চালকদের মারধর এবং গাড়ি ভাঙচুর করায় মাহিন্দ্র এবং বাস শ্রমিকদের মধ্যে প্রায়ই সংঘর্ষের ঘটনা ঘটছে। আর এতে ভোগান্তিতে পড়ছে এ রুটে চলাচলকারী যাত্রীরা।

সর্বশেষ গত ৬ অক্টোবর অবৈধ চেকপোস্ট থাকা লোকজন স্থানীয় এক সংবাদকর্মীকে প্রাণনাশের হুমকি দিয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় ওই সাংবাদিক বুধবার (৭ অক্টোবর) দুপুরে নলছিটি থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী (জিডি) করেছেন।

জিডি সূত্রে জানা গেছে, গত ৬ অক্টোবর সকাল ১০টার দিকে আঞ্চলিক দৈনিক বরিশালের কথা পত্রিকার নিজস্ব প্রতিবেদক মো. জসিম উদ্দিন তার এক আত্মীয়ের গুরুতর অসুস্থ ৩ বছর বয়সী ছেলেকে নিয়ে মাহিন্দ্রাযোগে (থ্রি-হুইলার) ষাইটপাকিয়া থেকে বরিশাল শের-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে যাচ্ছিলেন। মাহিন্দ্রটি ষাইটপাকিয়া বাজার এলাকায় অবৈধ চেকপোস্টের কাছে পৌঁছলে মো. মন্নান চৌধুরীর (মনা) নেতৃত্বে ৪/৫ জন লোক নিজেদের বাস মালিক সমিতির প্রতিনিধি পরিচয় দিয়ে গাড়িটি আটকে দেয়। এ সময় তারা অসুস্থ রোগীসহ মাহিন্দ্রার সকল যাত্রীদের নামিয়ে দেন এবং ড্রাইভারকে মারধর করেন। জসিম উদ্দিন নিজেকে সাংবাদিক পরিচয় দিয়ে অসুস্থ ছেলেটিকে বাঁচাতে মাহিন্দ্রাটিকে ছেড়ে দিতে মালিক সমিতির লোকজনের কাছে অনুরোধ করেন। এতেও তারা নমনীয় না হয়ে সাংবাদিক জসিমের সঙ্গে কথাকাটির একপর্যায়কে তাকে খুন-জখমের হুমকি দেয়। এ ঘটনায় জসিম উদ্দিন বাদি হয়ে নলছিটি থানায় জিডি করেন।

নলছিটির থানার ডিউটি কর্মকর্তা এএসআই মিনহাজ বলেন, জিডির বিষয়টি তদন্ত করে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here