এমসি কলেজ হোস্টেলে স্বামীকে আটকে রেখে স্ত্রীকে ‘গণধর্ষণ’ ছাত্রলীগের!

নিজস্ব প্রতিনিধি:সিলেট মুরারিচাঁদ (এমসি) কলেজের ছাত্রাবাসে স্বামীকে আটকে রেখে তার সুন্দরী স্ত্রীকে গণধর্ষণ করা হয়েছে বলে ছাত্রলীগ নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠেছে।

গতকাল শুক্রবার রাতে এ ঘটনা ঘটে বলে জানিয়েছেন শাহপরান থানার উপপরিদর্শক (এসআই) রিপটন পুরকায়স্থ।

তিনি জানান, খবর পেয়ে রাত সাড়ে ১০টার দিকে ছাত্রাবাস থেকে ওই স্বামী-স্ত্রীকে উদ্ধার করেছে শাহপরান থানা পুলিশ। জড়িতদের গ্রেফতারে অভিযান চলছে।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, শুক্রবার সন্ধ্যায় স্বামীকে নিয়ে এমসি কলেজে ঘুরতে গিয়েছিলেন ওই তরুণী। এসময় কলেজ ক্যাম্পাস থেকে ছাত্রলীগের ৫-৬ জন নেতাকর্মী তাদের জোরপূর্বক কলেজের ছাত্রাবাসে নিয়ে যায়্ সেখানে একটি রুমে স্বামীকে আটকে রেখে স্ত্রীকে গণধর্ষণ করে তারা।

ভুক্তভোগী ওই তরুণী বর্তমানে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে (ওসিসি) চিকিৎসাধীন আছেন।

এ ব্যাপারে শাহপরান থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কাইয়ুম চৌধুরী জানিয়েছেন, ওই দম্পতি কী জন ছাত্রাবাসে ঢুকেছিলেন সেটি জানার চেষ্টা চলছে। তাদের উদ্ধার করা হয়েছে। বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

এ বিষয়ে এমসি কলেজের হোস্টেল সুপার জামাল উদ্দিনও স্পষ্ট করে কিছু জানাতে পারেননি।

এমসি কলেজের অধ্যক্ষ সালেহ আহমদ জানিয়েছেন, ঘটনাস্থলে পুলিশ আলামত নিচ্ছে। বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে। তবে যতটুকু জেনেছি, স্বামী-স্ত্রীকে হোস্টেলে আটকে রাখা হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here