পটুয়াখালীতে ফেসবুকে মিথ্যা তথ্য প্রচার ও দোকান লুটের প্রতিবাদে ছাত্রলীগ সভাপতির সংবাদ সম্মেলন

 

সাঈদ ইব্রাহিম,পটুয়াখালী ঃ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে মিথ্যা তথ্য প্রচারের মাধ্যমে সমাজে হেয় প্রতিপন্ন করা এবং পারিবারিক ব্যাবসা প্রতিষ্ঠান নিয়ে অহেতুক হয়রানীর প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন করেছে পটুয়াখালী জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি মোঃ হাসান সিকদার সহ ভুক্তভোগীরা।
বুধবার (৮ জুলাই) দুপুরে পটুয়াখালী প্রেসক্লাব মিলনায়তনে গনমাধ্যম কর্মীদের উপস্থিতিতে অনুষ্ঠিত সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন পটুয়াখালী জেলা ছাত্রলীগ সভাপতি মোঃ হাসান সিকদার। তিনি লিখিত বক্তব্যে গনমাধ্যম কর্মীদের কাছে অভিযোগ করেন, পরিবারিক কলহের জেরে চাচাতো ভাই মাহামুদ সিকদার, ভগ্নীপতি বাকী বিল্লাহ ও তার স্ত্রী তাজনুর বেগম দির্ঘদিন ধরে মামলা হামলার মাধ্যমে তাদের পরিবারকে হয়রানী করছে। আদালতে মামলা নিষ্পত্তি হলেও তারা বিভিন্ন পন্থায় হয়রানী চালিয়ে যাচ্ছে। অতি সম্প্রতি সামাজিক ও রাজনৈতিক ভাবে হেয় প্রতিপন্ন এবং ব্যবসা প্রতিষ্ঠান দখল করার উদ্যেশ্যে, মারধোর, সম্পত্তি আত্মসাৎসহ চাঁদাবাজীর অভিযোগ এনে একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে মিথ্যা প্রচার করে। এছাড়া ব্যাবসায়ীক অংশিদার মোঃ শামীম খানের যোগসাজসে তার বিরুদ্ধে অপপ্রচার চালায় এবং ব্যাবসায় প্রতারনা করে। এমনকি গত ৭ জুন রাতে বিসিক শিল্প নগরী সংলগ্ন ব্যাবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে বাসায় ফেরার সময় তার ছোট ভাই এনামুল সিকদারের পথ রোধ করে তাকে হত্যার উদ্যেশ্যে ধাড়ালো অস্ত্র রাম দা দিয়ে উপুর্যপরি কুপিয়ে রক্তাক্ত জখম করে। এ ঘটনায় এনামুল মাথায় ও হাতে আঘাত প্রাপ্ত হয়ে পটুয়াখালী ২৫০ শয্যা বিশিস্ট হাসপাতালে চিকিৎসা গ্রহন করে। পরে পুলিশের হস্তক্ষেপে বিষয়টি সুরহা হয়। সর্বশেষ গত ২ জুলাই দুপুরে ব্যাবসায়ীক প্রতিষ্ঠানে হামলা চালিয়ে বড় ভাই আব্দুর রব সিকদার ও ম্যানেজারকে মারধর করে দোকানে থাকা টাকা-পয়সা লুট করে দোকানে তালা লাগিয়ে দেয়। বিষয়টি পুলিশকে অবহিত করা হয়েছে। এ অবস্থায় এই প্রতিপক্ষের হাতে হয়রানী থেকে রেহাই এবং ব্যাবসা প্রতিষ্ঠানে ক্ষতির আইনগত সমাধান কামনা করেন ছাত্রলীগ সভাপতি হাসান সিকদার। এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন জেলা ছাত্রলীগের সহ সভাপতি মোঃ নেছার উদ্দিন, হৃদয় আশিষ, আরিফ আল আমিন, মোঃ শাকিল খান, মোঃ সাইফুল ইসলাম ও মোঃ মোস্তফা মৃধা, ছাত্রলীগ নেতা বশির উদ্দিনসহ বিপুল সংখ্যক নেতা কর্মী।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here