শহীদ জননীর মৃত্যু নিয়ে অপপ্রচারে বরিশাল তোলপাড়

নিজস্ব প্রতিনিধিঃশহীদ জননী, বীর মুক্তিযোদ্ধা ও জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি সাহান আরা বেগমের মৃত্যুর ১১দিন পর করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণের খবর একটি প্রথম শ্রেনীর জাতীয় দৈনিকে ছবিসহ প্রকাশ করা হয়েছে।
এ মিথ্যে অপপ্রচারের ঘটনায় চরম বিব্রতকর অবস্থায় পরেছেন মরহুমার পরিবারসহ দলীয় নেতাকর্মীরা। প্রকাশিত সংবাদটি থেকে মরহুমা সাহান আরা বেগমের নাম প্রত্যাহারপূর্বক সংশোধনী প্রকাশের জন্য সংশ্লিষ্ট পত্রিকা কর্তৃপক্ষের প্রতি আহবান করেছেন মরহুমার পরিবারের সদস্যরা।
সাহান আরা বেগমের আস্থাভাজন গৌরনদী উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক ও প্রধানমন্ত্রীর জাতীয় পুরস্কারপ্রাপ্ত মাহিলাড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সৈকত গুহ পিকলু বলেন, গত ১৭ জুন করোনায় আক্রান্ত হয়ে দেশের বিশিষ্টজনদের মৃত্যুতে শ্রদ্ধা জানিয়ে বিশেষ সাময়িকি প্রকাশ করেছে দৈনিক প্রথম আলো পত্রিকা।
সেখানে বরিশাল বিভাগের আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীদের একমাত্র অভিভাবক মন্ত্রী আলহাজ্ব আবুল হাসানাত আব্দুল্লাহ এমপি এবং বরিশাল সিটি কর্পোরেশনের মেয়র সেরনিয়াবাত সাদিক আব্দুল্লাহ’র মাতা, বিশিস্ট রাজনীতিবীদ সদ্য প্রয়াত সাহান আরা বেগমের নাম এবং ছবি অর্ন্তভুক্ত করা হয়েছে। যা দেখে তিনিসহ আওয়ামী লীগের ত্যাগী নেতাকর্মীরা ব্যাথিত হয়েছেন।
এ ঘটনার তীব্র প্রতিবাদ করে সৈকত গুহ পিকলু আরও বলেন, সাহান আরা বেগম গত ৫ জুন আকস্মিক হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে ভর্তি হন। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি ৭ জুন রাতে ইন্তেকাল করেছেন। যা হাসপাতাল থেকে ডেথ সার্টিফিকিটে সুস্পষ্ট উল্লেখ রয়েছে। সেখানে প্রথম শ্রেনীর ওই পত্রিকা কোন প্রকার তথ্য যাচাই না করে সাহান আরা বেগমকে করোনা আক্রান্তদের তালিকায় স্থান দিয়ে সচিত্র সাময়িকি প্রকাশ করেছে। যা সম্পূর্ণ মিথ্যে ও ভিত্তিহীন।
মরহুমা সাহান আরা বেগমের মেঝ পুত্র বিশিষ্ট ব্যবসায়ী ও এফবিসিসিআইয়ের পরিচালক সেরনিয়াবাত মঈন উদ্দীন আব্দুল্লাহ বলেন, বিষয়টি খুবই দুঃখজনক, আমার মায়ের মৃত্যুর কারণ যেখানে দিবালোকের মতো স্পষ্ট, সেখানে এ ধরনের অপপ্রচার আমাদের শোকার্ত পরিবারকে আরো ব্যথিত করেছে।
জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক সংসদ সদস্য এ্যাডভোকেট তালুকদার মোঃ ইউনুস বলেন, সাহান আরা বেগমের মতো একজন প্রতিষ্ঠিত রাজনীতিবিদ এবং সংস্কৃতি কর্মীর মৃত্যু নিয়ে অপপ্রচারের আমরা তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here