জ্বর নিয়ে শ্বশুরবাড়ি এলেন জামাই, পালালেন শাশুড়ি

দিনাজপুর প্রতিনিধি:জ্বর নিয়ে নারায়ণগঞ্জ থেকে বিরামপুর শ্বশুরবাড়ি যান মেয়ের জামাই গোলাম আজম। পরদিন সকালেই নিজ বাড়ি থেকে পালিয়ে যান শাশুড়িসহ বাড়ির পাঁচ সদস্য। ঘটনাটি এলাকায় ছড়িয়ে পড়লে সবার মাঝে আতঙ্ক বিরাজ করে।

বুধবার সকালে ওই জামাইসহ করোনা সন্দেহে পাঁচজনের নমুনা সংগ্রহ করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসকরা। এ ঘটনায় ওই চারজনের বাড়ি লকডাউন করা হয়েছে।

বিরামপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. মো. সোলায়মান হোসেন মেহেদি জানান, শরীরে জ্বর, গলাব্যথা, সর্দি নিয়ে গোলাম আজম সোমবার রাতে নারায়ণগঞ্জ থেকে তার শ্বশুর বাড়িতে আসেন।

তিনি আরো বলেন, করোনা সন্দেহে বিরামপুর উপজেলার বেশ কয়েকটি স্থান থেকে পাঁচজনের নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে।

একইদিনে নবাবগঞ্জ উপজেলায় করোনা সন্দেহে এক ব্যক্তির নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে এবং ওই ব্যক্তির বাড়িতে থাকা সবাইকে হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকার পরামর্শ দেয়া হয়েছে।

উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. সোলায়মান হোসেন মেহেদি আরো বলেন, এরইমধ্যে বিরামপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে করোনা ইউনিটে আইসোলেশনে তিনজন রোগী ভর্তি আছেন। তাদের শরীরে নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছিল। কিন্তু তাদের শরীরে করোনা পাওয়া যায়নি। বুধবার দুপুরে ওই তিন ব্যক্তির করোনা পরীক্ষা রিপোর্ট নেগেটিভ বলে আইইডিসিআর থেকে পাঠানো হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here