পিরোজপুরে সাংবাদিক পরিচয়ে চাঁদাবাজি, ২ প্রতারক গ্রেপ্তার

পিরোজপুর প্রতিনিধি:: পিরোজপুরের নাজিরপুরে সাংবাদিক পরিচয়ে প্রতারণা ও চাঁদাবাজির অভিযোগে ইমাম হোসেন জমাদ্দার ও সরোয়ার হোসেন নামে দুই ব্যক্তিকে গ্রেফতার করেছে নাজিরপুর পুলিশ। এ ঘটনায় ভুক্তভোগী আবুল হাসান নামে এক পল্লী চিকিৎসক বাদী হয়ে সোমবার বিকেলে নাজিরপুর থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন। চাঁদাবাজী ও প্রতারণার অভিযোগে তাদের বিরুদ্ধে মামলা রুজুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন নাজিরপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মুনিরুল ইসলাম মুনির।

গ্রেপ্তারকৃত ইমাম হোসেন জমাদ্দার (৩৮) জেলার কাউখালী উপজেলার নিলতী গ্রামের আবু সালেক জমদ্দারের ছেলে এবং সরোয়ার হোসেন (৪৪) জেলার ভান্ডরিয়া উপজেলার উত্তর শিয়ালকাঠী গ্রামের মৃত আব্দুর সাত্তার হাওলাদারের ছেলে।

নাজিরপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মুনিরুল ইসলাম মুনির বরিশালটাইমসকে জানান, আটক ইমাম হোসেন জমাদ্দার ও সরোয়ার হোসেন সোমবার সকাল ১০ টার দিকে উপজেলার গাওখালী বাজারের পল্লী চিকিৎসক আবুল হাসানের চেম্বারে গিয়ে নিজেদের প্রতিদিনের সংবাদ ও ডেইলী মনিং গেøারী পত্রিকার পিরোজপুর জেলা প্রতিনিধি পরিচয় দেয় এবং আবুল হাসানকে বিভিন্ন হয়রানী মুলক প্রশ্ন করে। এক পর্যায়ে তারা পত্রিকায় সংবাদ প্রকাশের ভয় দেখিয়ে আবুল হাসানের কাছে ৫০ হাজার টাকা দাবী করে। তাদের কথা বার্তায় আবুল হাসানের সন্দেহ হলে কৌশলে তিনি বিষয়টি স্থানীয় লোকজনসহ ওই বাজারের ব্যবসায়ী সমিতিকে অবগত করেন। পরে তারা নাজিরপুরসহ পিরোজপুরে কমর্রত সাংবাদিকদের মাধ্যমে খোঁজ খবর নিয়ে তারা প্রতারক বলে জানতে পারেন। পরে স্থানীয়দের সহায়তায় তাদের আটক করে পুলিশের নিকট হস্তান্তর করেন।

উপজেলার বৈঠাকাটা বাজারের ওষুধ ব্যবসায়ী নান্না মিয়া জানান, গত রবিবার ওই দুই ব্যক্তি তার ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে গিয়ে বিভিন্ন রকমের ভয়ভীতি দেখিয়ে তাদের সাথে যোগাযোগ করতে বলেন। একই অভিযোগ করেন উপজেলার তৈয়বের বাজারের ওষুধ ব্যবসায়ী হাবিবুর রহমান।

নাজিরপুর থানার ওসি মো. মুনিরুল ইসলাম মুনির আরও জানান, স্থানীয় জনতা তাদের আটক করে পুলিশে সোর্পদ করেছেন এবং পল্লী চিকিৎসক আবুল হাসানের অভিযোগের ভিক্তিতে তাদের বিরুদ্ধে একটি মামলা রুজু হয়েছে।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here