সাংবাদিককে জবাই করার হুমকি ছাত্রলীগ নেতার!

চবি  প্রতিনিধিঃ চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে (চবি) জোবায়ের চৌধুরী নামের এক সাংবাদিককে জবাই করে হত্যার হুমকি দিয়েছেন বলে অভিযোগ উঠেছে শাখা ছাত্রলীগের বিলুপ্ত কমিটির সহ-সভাপতি রেজাউল হক রুবেলের বিরুদ্ধে।

ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষের নিউজে তার কমেন্ট না দেয়ায় এই হুমকি বলে জানান ভুক্তভোগী ওই সাংবাদিক। এসময় নিউজে তার কমেন্ট যারা নিবে না তাদেরকেও জবাই করে হত্যা করা হবে বলে হুমকি দেন।

বৃহস্পতিবার (২ আগস্ট) রাতে নগরীর দামপাড়া বাস কাউন্টারে এই হুমকি দেন ছাত্রলীগ নেতা।

ভুক্তভোগী সাংবাদিক জোবায়ের চৌধুরী চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় সাংবাদিক সমিতির প্রচার, প্রকাশনা ও দপ্তর সম্পাদক ও দৈনিক পূর্বদেশ এর প্রতিনিধি।

তিনি  বলেন, ‘আমি শ্রীমঙ্গল যাওয়ার জন্য বৃহস্পতিবার রাত সোয়া ৯টার দিকে দামপাড়া বাস কাউন্টারে আসি। কয়েকদিন আগে আটককৃত ছাত্রলীগকর্মী শফিকের এক আত্মীয়কে গাড়িতে তুলে দিতে ছাত্রলীগ নেতা রেজাউল হল রুবেল কাউন্টার আসেন। এসময় আমার সাথে কথা বলেন। তিনি আমার কাছে জানতে চান, নিউজ করার সময় কেন তার কমেন্ট দেয়া হয়নি? তাকে নওফেল ভাই দায়িত্ব দিয়েছে। আমি বললাম, নওফেল ভাই বলেছেন ওনি বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের কোনো গ্রুপ চিনেন না।’

‘এরপর রুবেল উত্তেজিত হয়ে আমাকে বলেন, কোনো সাংবাদিক যদি তার কমেন্ট না দেয় তাহলে তাকে জবাই করে মেরে ফেলবে। আমাকেও জবাই করবে। এসময় তার সাথে থাকা ছাত্রলীগ নেতা নাজমুল ও অনিক সাব্বির তাকে নিবৃত্ত করে। তিনি আমাকে এও বলেছেন, তার বাড়ি ফেনী। আমাকে বাড়ি নোয়াখালীতেও তিনি আমাকে দেখে নিবেন। আমি আমার সংগঠনের নেতৃবৃন্দকে জানিয়েছি বিষয়টি। আইনি পদক্ষেপ নিব।’

তবে এ বিষয়ে জানতে রেজাউল হক রুবেলকে বার বার মুঠোফোনে কল দিলেও তিনি রিসিভ করেননি।

এদিকে রেজাউল হক রুবেল নামের কাউকে শাখা ছাত্রলীগের দ্বায়িত্ব দেননি জানিয়ে কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল বলেন, ‘চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের কোনো গ্রুপ আমি চিনি না। আর এখানে দেখভালের জন্য আমি কাউকে দায়িত্ব দেই নি। রেজাউল হক রুবেল নামের কাউকে আমি চিনি না।’

নওফেল বলেন, ‘সে কে আর কী এমন হইছে যে সাংবাদিকদের তার কমেন্ট নিতে হবে? আমি কেন তাকে দায়িত্ব দেব? একসময় সে আমাদের বাসায় আসতো, আমি মানা করে দিয়েছি। মাঝে বিশ্ববিদ্যালয় কমিটি নিয়েও সে ঝামেলা করতে চাইছিল। সারা বাংলাদেশে চলতেছে প্রবলেম। আর সে করে মাস্তানি। হাটহাজারীর ওসিকে বলে দেব তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে। মাস্তানির মজা একদম বুঝায় দেব।’

তিনি আরো বলেন, ‘এখানে কেউ অপকর্ম করলে দায়-দায়িত্ব সম্পূর্ণ তাদের। আমি কোন অপরাধীর দায়িত্ব নিব না।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here