একটি সেতুর অভাবে ছয় হাজার মানুষের দুর্ভোগ

কক্সবাজার প্রতিনিধি:কক্সবাজারের উখিয়া উপজেলার জালিয়াপালং ইউপির ২ নম্বর ওয়ার্ডের সিকদার পাড়া ও গোরাইয়ার দ্বীপ এলাকায় একটি সেতুর অভাবে ছয় হাজারের অধিক মানুষ দুর্ভোগে রয়েছেন। যাতায়াতের একটিমাত্র মাধ্যম কাঠের নৌকা।

সেতু না থাকায় কাঠের নৌকা দিয়ে রোববার সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ছগির আহমদের লাশ খাটিয়ার মাধ্যমে আনা হয় খালের এ পাড় থেকে ওপারে। অতিমাত্রায় ঝুঁকি নিয়ে কোনোমতে লাশ নিয়ে হাজির জানাজার উদ্দেশ্যে। লাশ আনার আগে ও পরে শত শত মানুষ খাল পার হয় মাত্র দুটি ডিঙি নৌকার সহায়তায়।

এলাকাবাসী জানান, অবহেলিত সিকদার পাড়া ও গোরাইয়ার দ্বীপের ছয় হাজার মানুষ। সারাদেশে উন্নয়নের ছোঁয়া লাগলেও এ গ্রামের মানুষের যাতায়াতের একমাত্র ভরসা ডিঙি নৌকা। বর্ষাকালে পানির প্রবল স্রোতে অসংখ্যবার নৌকা উল্টে শত শত মানুষ জীবনের ঝুঁকি নিয়ে সাঁতরে খাল পার হয়েছে বলে জানান তারা।

তাছাড়া শত শত স্কুল কলেজ পড়ুয়া শিক্ষার্থীদের দুর্ভোগ লাঘবে সেতু নির্মাণের দাবি এলাকাবাসীর।

জালিয়াপালং ইউপি চেয়ারম্যান নুরুল আমিন চৌধুরী জানান, কাঠের নৌকা দিয়ে খাল পার হওয়া জনসাধারণের দুর্ভোগ লাঘবে সেতু নির্মাণ করা হবে। আশা করি দ্রুত সময়ে এ দুর্ভোগ লাঘব হবে। এ ব্যাপারে ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের সঙ্গে যোগাযোগ প্রক্রিয়া চলমান বলে জানান তিনি।

উপজেলা নির্বাহী প্রকৌশলী রবিউল ইসলাম জানান, জালিয়াপালং ইউপির এ এলাকার মানুষের দুর্ভোগ লাঘবে সব ধরনের পদক্ষেপ নেওয়া হবে। উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় উন্নয়ন কর্মকাণ্ড চলমান।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here